Home সিলেট বিভাগ জৈন্তাপুরে মোবাইল কোর্টের্ ৪টি মামলা,১৫ লক্ষ ঘনফুট বালু জব্দ

জৈন্তাপুরে মোবাইল কোর্টের্ ৪টি মামলা,১৫ লক্ষ ঘনফুট বালু জব্দ

by jonoterdak24
0 comment

জৈন্তাপুর প্রতিনিধি: সিলেটের জৈন্তাপুরে সারী ও বড়গাং নদীর উৎস মূখে অবৈধ ভাবে বালু উত্তোলন এবং সরকারি রয়েলিটি আত্মসাথের দায়ে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করে ৪টি মামলা দায়ের এবং প্রায় ১৫ লক্ষ ঘনফুট বালু জব্দ করা হয়।

অভিযান পরিচালনাকালে উপস্থিত ছিলেন জৈন্তাপুর ইউনিয়ন ভূমি সহকারি কর্মকর্তা শ্রামল সিংহ, দরবস্ত ইউনিয়ন ভূমি সহকারি কর্মকর্তা রনবিজয় চক্রবর্তী, জৈন্তাপুর মডেল থানার এস.আই আব্দুল মান্নান, এস.আই শাহেদ, এস.আই রুমেন আহমদ প্রমুখ।

সারী ও বড়গাং বালু মহালের বৈধ ইজারাদার ২টি বালু মহাল গত ২৫ মে ২০১৬ইং তারিখে ১কোটি ৩০লক্ষ টাকা জামানত সহ সরকারি কোষাগারে জমা প্রদান করে। পরবর্তীতে ২টি বালু মহালের বৈধ কাজগপত্র সমজিয়া পাইলেও সরেজমিন দখল পান নাই।
এ দিকে কতিপয় বালু ব্যবসায়ী সরকারি রয়েলিটি পরিশোধ না করে অবৈধ ভাবে বালু উত্তোলন ও ক্রয় বিক্রয় করে আসছে। ফলে ৪মাস থেকে বৈধ ইজারাদারগন তাদের প্রাপ্ত রয়েল্টি আদায় করতে পারছেনা।
এ নিয়ে ব্যবসায়ী ও ইজারাদার গনের মধ্যে কয়েক দফা বাক বিতন্ডা হয়। পরবর্তীতে জেলা প্রশাসক কার্যালয় সিলেট এর নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে বালু ব্যবসায়ী উপজেলার গর্দ্দনা গ্রামের মৃত হরমুজ আলীর ছেলে হারুন মিয়া(৫৫), সরুফৌদ গ্রামের মৃত আতাউর রহমানের ছেলে মখলিছ মোল্লা(৪০), একই গ্রামের আব্দুল হান্নান এর ছেলে আব্দুস ছোবহান মোল্লা(৪৯), আইয়ুব আলীর ছেলে লোকমান আহমদ(৩০), পাঁচ সেউতি গ্রামের ইসাক আলীর ছেলে দিলু আহমেদ(৩৫), ডুপি গ্রামের মৃত সিদ্দিক আলীর ছেলে মোঃ নুর উদ্দিন(৫০), আগফৌদ গ্রামের আব্দুর রহিম এর ছেলে নজির আহমেদ(৪০), নিজপাট লামাপাড়া গ্রামের শক্তিপদের ছেলে শেখর বাবু(৪৫) উপজেলার লামনীগ্রামের মৃত তৈয়ব আলীর ছেলে আব্দুস সালাম(৪৫) এর নাম উল্লেখ করে ইজারাদার অভিযোগ দায়ের করে।
বৈধ ইজারাদারের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে গতকাল ১১ আগষ্ট বৃহস্পতিবার বেলা ২টায় সারী ও বড়গাং নদীর উৎসমূখে জেলা প্রশাসক কার্যালয়, সিলেট এর সিনিয়র সহকারি কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিষ্টেট মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন। অভিযান পরিচালনা কালে সারী ও বড়গাং নদীর উৎস্য মূখ হতে প্রায় ১৫লক্ষ ঘনফুট বালু জব্দ করে ইজারাদার মনোনিত ৪ ব্যাক্তির জিম্মায় রেখে যান। এছাড়া বিশৃংখলা এড়াতে জৈন্তাপুর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জকে লিখিত ভাবে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য নির্দেশ প্রদান করেন।

Related Posts

Leave a Comment


cheap jerseyscheap jerseyscheap nfl jerseyscheap jerseys from chinacheap mlb jerseyscheap nhl jerseyscheap jerseyscheap nfl jerseyscheap mlb jerseyscheap nfl jerseys