Home অপরাধ প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে ফলিকের কটুক্তিঃজেলা ও মহানগর যুবলীগের প্রতিবাদ….

প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে ফলিকের কটুক্তিঃজেলা ও মহানগর যুবলীগের প্রতিবাদ….

by jonoterdak24
0 comment

সিলেট জেলা পরিবহণ শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি সেলিম আহমদ ফলিকের বিরুদ্ধে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে কটুক্তির অভিযোগ উঠেছে।যুবলীগের নেতা কর্মীরা এ অভিযোগ তুলেন।এ নিয়ে সিলেট সিটি কর্পোরেশনের ভিতরে এক উত্তপ্ত পরিস্তিতির সৃষ্টি  হয়।
পরে প্রশাসন ও  জেলা যুবলীগের সভাপতি  শামীম আহমদ মহানগর যুবলীগের আহবায়ক আলম খান মুক্তি ও জেলার সাধারণ সম্পাদক খন্দকার মহসিন কামরানের হস্তক্ষেপে পরিস্তিতি শান্ত হয়।
এ ব্যাপারে জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক খোন্দকার মহসিন কামরান বলেন বহু বছর ধরে কদমতলী বাস টার্মিনাল একটি সিন্ডিকেটের কাছে জিম্মি ছিল।গত ২ বছর আগে আমি সিলেট সিটি কর্পোরেশন থেকে অপেন চেন্ডারের মাধ্যমে লিজ নেই এবং এর পরের বছর জেলা যুবলীগ নেতা বিশিষ্ট ব্যাবসায়ী মিসবাহ তালুকদার অপেন চেন্ডারের মাধ্যমে লিজ নেন,এই লিজ নেয়াকে কোনভাবেই মেনে নিতে পারেন নি শ্রমিক নেতা ফলিক।
জেলা যুবলীগের সভাপতি শামীম আহমদ বলেন রাষ্টনায়ক নায়ক শেখ হাসিনা কে কটুক্তির কথা শুনে আমরা এখানে এসে উপস্তিত হই,এবং বিষয়টি উপস্তিত প্রশাসন কে অবহিত করি।
মহানগর যুবলীগের আহবায়ক আলম খান মুক্তি
বলেন,রাষ্টনায়ক শেখ হাসিনাকে কঠুক্তির কথা শুনে আমি এবং জেলা যুবলীগগের নেতৃবৃন্দ এখানে এসে উপস্তিত হই,আমাদের উপস্তিতি দেখেও কিছু শ্রমিক উস্কানিমুলক কথা বলতে থাকে।
যুবলীগের এক কর্মী অভিযোগ করে  বলেন সাধারণ একজন গাড়ীর হেলপারা আজ কোটি কোটি টাকার মালিক।প্রায় ৯০ লক্ষ টাকা দিয়ে আজ তিনি সিটি করর্পোরেশনের আওতাধীন কদমতলীর বাস টার্মিনালে ইজারা নেওয়ার জন্য টেন্ডার দিয়েছেন। এত টাকা উনি কোথা থেকে পেলন।
তার অবৈধ ক্ষমতার দাপটের কাছে সাধারণ মানুষ জিম্মি,কিছু হলেই সে প্রশাসন এবং সরকারকে হড়তাল অবরোধের হুমকি দে,সহজ সরল সাধারন শ্রমিকদের ব্যবহার করে  তার নিজের আখের গোছাচ্চে। হাতিয়ে নিচ্ছে কোটি কোটি টাকা।
জানা যায়- সোমবার দুপুরে সিলেট সিটি করপোরেশনের অস্থায়ীকার্যালয়ে কদমতলীস্থ বাস টার্মিনালের দরপত্র জমা দিতে যান সিলেট জেলা পরিবহণ শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি সেলিম আহমদ ফলিক। দরপত্র জমা দিয়ে বের হয়ে তিনি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও সিলেটের আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দকে নিয়ে কটুক্তি করেন।
পরে পুলিশ সেখানে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে এবং শ্রমিকনেতা ফলিককে তাদের হেফাজতে নিয়ে কোতায়ালী থানায় নিয়ে যান।পরে তাকে থানা থেকে ছেড়ে দেওয়া হয় বলে জানা যায়।

Related Posts

Leave a Comment


cheap jerseyscheap jerseyscheap nfl jerseyscheap jerseys from chinacheap mlb jerseyscheap nhl jerseyscheap jerseyscheap nfl jerseyscheap mlb jerseyscheap nfl jerseys