Home সারাদেশ শাহী ঈদগাহ খেলার মাঠে মেলা; খেলা হাসপাতাল মাঠে.

শাহী ঈদগাহ খেলার মাঠে মেলা; খেলা হাসপাতাল মাঠে.

by jonoterdak24
0 comment

০৪ মার্চ শুক্রবার ২০১৬ :: সিলেট নগরীর শাহী ঈদগাহ খেলা মাঠে দ্বিতীয়বারের মতো আন্তর্জাতিক বাণিজ্যমেলা আয়োজনের প্রস্তুতি প্রায় শেষ লগ্নে। কিছুদিনের মধ্যেই শুরু হচ্ছে মেলা। মেলার আয়োজনে খেলার মাঠ জুড়ে রাখায় খেলা আয়োজন করতে হচ্ছে পাশের হাসপাতাল সংলগ্ন মাঠে।

বৃহস্পতিবার সকালে পাশ্ববর্তী হাসপাতাল মাঠে শুরু হয়েছে ক্রিকেট টূর্ণামেন্ট। খোঁজ নিয়ে জানাগেছে এই ক্রিকেট টুর্নামেন্টটি শাহী ঈদগাহ খেলার মাঠে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। মেলার কারণে টুর্নামেন্টটি স্থানান্তর করতে বাধ্য হয়েছেন আয়োজন সংস্থা সুরমা বয়েজ ক্লাব।

জানাগেছে, সিলেটের সুরমা বয়েজ ক্লাব আয়োজিত ক্রীড়াবিদ ও মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক মরহুম মামুনুর রশীদ চৌধুরী স্মৃতি ক্রিকেট টুনামেন্টের ১৫তম আসর শুরু হয়েছে বৃহস্পতিবার সকালে। এটি সিলেট শাহী ঈদগাহ সদর উপজেলা খেলার মাঠে শুরু হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু এ মাঠে মেলার আয়োজনরে প্রস্তুতি থাকায় আয়োজকরা পূর্ব শাহী ঈদগাহস্থ টিবি গেইট মাঠে টুর্নামেন্টটি স্থানান্তর করতে বাধ্য হয়েছেন।

এদিকে শাহী ঈদগাহ খেলার মাঠে মেলার আয়োজন করছে সিলেট মেট্রোপলিটন চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রিজ। বৃহস্পতিবার মাঠে গিয়ে দেখা গেছে মেলা আয়োজনরে প্রস্তুতি প্রায় শেষের দিকে। মেলার স্থাপনা নির্মাণের কাজ শেষের দিকে।

স্টল ও প্যাভেলিয়ন বরাদ্দ নেওয়ার ব্যাপারে যোগাযোগ করতে বলা হচ্ছে মেট্রোপলিটন চেম্বারের সদস্য এম এ মঈন খান বাবলুর সাথে। এই বাবলু অর্থ আত্মসাতের দায়ে সিলেট চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রিজ দায়েরকৃত দুইটি মামলার সাজাপ্রাপ্ত আসামী। সাজাপ্রাপ্ত আসামীর হাতে আন্তর্জাতিক মানের একটি গুরুত্ববাহী মেলার আয়োজন তুলে দেয়ায় প্রশ্নবিদ্ধ হয়ে পড়েছে মেট্রোপলিটন চেম্বারের ভূমিকা। অতীতে এই মাঠে মেলা আয়োজন করে বাবলু মেলাকে এক মাসের কথা দুই মাসে নিয়ে শেষ করেছেন।

তখন মেলার ব্যবসায়ীদের জোর করে আটকে রেখে একমাসের মেলা প্রায় দুইমাস চালিয়ে নেয়ার অভিযোগ ওঠেছিল বাবলুর বিরুদ্ধে।

কিছুদিন আগে এ মাঠে জঞ্জাল পরিস্কার করে স্থানীয়দের খেলাধূলার সুযোগ সৃষ্টি করে দেওয়ার দাবিতে মানববন্ধনও করেছিলেন স্থানীয় এলাকাবাসী ও মাঠের লাগোয়া একটি বেসরকারি বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরাও। উক্ত মানববন্ধনে সিলেটের বিশিষ্টজনসহ ক্রীড়ামোদীরা উপস্থিত ছিলেন।

এ বিষয়ে স্থানীয় ক্রীড়াপ্রেমিরা বলেন, সিলেটে নগরী ও শহরতলিতে শিশু-কিশোরদের জন্য খেলার মাঠ নেই বললেই চলে। শাহী ঈদগাহ খেলার মাঠ হলো আধারের আশার আলো। কিন্তু এই মাঠটিতে বছরে একাধিকবার মেলা ও কোরবানির পশুর হাট করে ব্যবসা বাণিজ্য করা হয়। এর মাধ্যমে আশপাশের শিশু-কিশোররা বঞ্চিত হচ্ছেন খেলাধূলার সুযোগ থেকে।
তারা দাবি করেন সিলেটে মেলা আয়োজনের জন্য আরো অনেক স্থান রয়েছে। পশুর হাটের জন্য রয়েছে আরোও অনেক স্থান। এখানে খেলার মাঠে মেলা আয়োজন করে শিশু কিশোরদের চিত্ত-বিনোদনে আঘাত দেওয়া কি আইনসঙ্গত এমন প্রশ্ন স্থানীয়দের।

স্কলার্স হোম শাহী ঈদগাহ ক্যাম্পাসের অধ্যক্ষ ব্রিগ্রেডিয়ার জেনারেল (অব.) জুবায়ের সিদ্দিকী বলেছেন, বিভিন্ন সময় মেলা ও পশুর হাটের জন্য সদর উপজেলা খেলার মাঠটি সম্পূর্ণ খেলার অনুপযুক্ত। দীর্ঘ দিন মেলা ও হাটের কারণে মাঠের মধ্যে ময়লা থাকে যা ফলে পরিস্কার পরিচ্ছন করা হয় না। এতে করে খেলার মাঠের পাশাপাশি এলাকার পরিবেশ নষ্ট হচ্ছে। এতে করে মাঠটি খেলার অনুপযুক্ত থাকে। তিনি বলেন গত বছরের নভেম্বর থেকে এখনও এটা খেলার অনুপযুক্ত রয়েছে, যার ফলে এলাকার তরুণরা খেলাধুলার সুযোগ থেকে বঞ্চিত।
mall

Related Posts

Leave a Comment


cheap jerseyscheap jerseyscheap nfl jerseyscheap jerseys from chinacheap mlb jerseyscheap nhl jerseyscheap jerseyscheap nfl jerseyscheap mlb jerseyscheap nfl jerseys