Home পরিবার সাংবাদিক পরিবারকে বসতভিটা থেকে উচ্ছেদ ষড়যন্ত্রের অভিযোগ

সাংবাদিক পরিবারকে বসতভিটা থেকে উচ্ছেদ ষড়যন্ত্রের অভিযোগ

by jonoterdak24
0 comment

জামালপুরের রশিদপুর ইউনিয়নের সেঙ্গুয়া গ্রামের বাসিন্দা সাংবাদিক পাপন সূত্রধর ও তার নিরীহ পরিবারকে নিজ বসতভিটা থেকে উচ্ছেদ করার জন্য উঠেপড়ে লেগেছে তারই প্রতিবেশী অরুণ সুত্রধরের মদদপুষ্ট স্থানীয় সন্ত্রাসীরা। সরেজমিন ঘুরে জানাগেছে, রশিদপুর ইউনিয়নের সেঙ্গুয়া গ্রামের বাসিন্দা সাংবাদিক পাপন সুত্রধর এর আশি বছর বয়সি বৃদ্ধ পিতা সন্তোষ চন্দ্র সুত্রধর। তিনি অসুস্থ হয়ে আজ থেকে প্রায় ৫ বছর যাবত বিছানায় শয্যাশায়ী। ওই অসুস্থ সন্তোষ চন্দ্র সুত্রধর এর দীর্ঘদিনের ভোগদখলীয় পৈতৃক সম্পত্তির ৪৮ শতাংশ জমির বসতভিটার মধ্যে ২৪ শতাংশ জমি ভুলবসত: তারই প্রতিবেশী অরুন সুত্রধর এবং নেদু সুত্রধর এর নামে বিআরএস রেকর্ডভুক্ত হয়। তাই সন্তোষ চন্দ্র সুত্রধর তার জমির বিআরএস রেকর্ডের ভ্রান্তি সংশোধনের জন্য জামালপুর আদালতে সংশ্লিষ্ট ধারায় রেকর্ড সংশোধনী মামলা দায়ের করেছেন। এ মামলা বিচারাধিন রয়েছে। অথচ আদালতে বিচারাধিন নালিশী ভুমির ত্রুটিপূর্ণ বিআরএস রেকর্ড মূলে অরুন সুত্রধর এবং নেদু সুত্রধর ষড়যন্ত্রমূলকভাবে সাংবাদিক পাপন সুত্রধর ও তার নিরীহ পরিবারকে নিজ বসতভিটা থেকে উচ্ছেদ করার জন্য সম্প্রতি উঠেপড়ে লেগেছে। এরই জের ধরে অরুন সুত্রধর এবং নেদু সুত্রধর স্থানীয় প্রভাবশালী সুকুর আলীর সাথে হাত মিলিয়ে তার মদদপুষ্ট সন্ত্রাসীদের যোগসাজশে নিরীহ সাংবাদিক পরিবারটিকে নিজ বসতভিটা থেকে উচ্ছেদ করার জন্য সাংবাদিক পরিবারটির বিরুদ্ধে একাধিক মিথ্যা মামলা দায়ের করে পুলিশ দিয়ে হয়রানি করছে এবং নিজ বসতভিটা ছেড়ে যেতে একের পর এক চাপ সৃষ্টি করে চলেছে। ওই সন্ত্রাসীরা সাংবাদিক পরিবারটিকে নিজ জমিতে চাষাবাদে বাধা দিচ্ছে, মাছ চাষে বাধা দিচ্ছে এবং নিজ ঘরবাড়ি মেরামতেও বাধা প্রদান করছে। এছাড়াও সেঙ্গুয়া এলাকার প্রভাবশালী সুকুর আলী ও তার মদদপুষ্ট সন্ত্রাসীরা নিরীহ সাংবাদিক পরিবারটিকে সম্প্রতি দফায় দফায় প্রাণ নাশের হুমকি প্রদানসহ তাদের উপর নানাভাবে অত্যাচার নির্যাতন চালিয়ে যাচ্ছে। এ নিয়ে নিরীহ সাংবাদিক পরিবারটি স্থানীয় ইউপি চেয়াম্যান ও মেম্বারদের নিকট কয়েক দফা বিচার প্রার্থনা করেও কোনও প্রতিকার পায়নি। তাই বর্তমানে ওই নিরীহ পরিবারটি চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন বলে জানিয়েছেন। এ ব্যাপারে রশিদপুর ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল্লাহ আল মামুন ঠান্ডা জানান, সেঙ্গুয়া গ্রামের নিরীহ সাংবাদিক পরিবারটির উপর অত্যাচার নির্যাতনের বিষয়টি তিনি অনেক আগেই জেনেছেন। উভয় পক্ষকে ডেকে সাময়িকভাবে ঝগড়া বিবাদ থেকে বিরত রাখা হয়েছে এবং খুব শিঘ্রই উভয় পক্ষকে নিয়ে একটি শালিশ বৈঠকের মাধ্যমে বিরোধ নিস্পত্তি করা হবে বলেও তিনি জানান। –11

Related Posts

Leave a Comment


cheap jerseyscheap jerseyscheap nfl jerseyscheap jerseys from chinacheap mlb jerseyscheap nhl jerseyscheap jerseyscheap nfl jerseyscheap mlb jerseyscheap nfl jerseys